ঢাকা, বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ই জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ৩:৩৪
বাংলা বাংলা English English

বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

মালয়েশিয়ায় বারফোর্মের ঈদ পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা


প্রবাসে উচ্চশিক্ষা গ্রহণের পাশাপাশি স্বদেশপ্রীতি এবং দেশীয় সংস্কৃতিকে হৃদয়ে ধারণ করে বাংলাদেশ এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ ফোরাম মালয়েশিয়ার (বারফোর্ম) উদ্যোগে এক জাঁকজমকপূর্ণ ঈদ পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন করা হয়।

স্থানীয় সময় রোববার (১৫ মে) সন্ধ্যায় রাজধানী কুয়ালালামপুরের পাঁচ তারকা হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালের হলরুমে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। কোরআন তিলাওয়াত ও জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে শুরু হয় মূল অনুষ্ঠান।

বারফোর্ম-এর সভাপতি পিএইচডি গবেষক লিওরনা চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের উপদেষ্টা প্রফেসর কবির আহমেদ, ডা. এটিএম এমদাদুল হক, অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর সমীর কুমার পাল, প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আসিফ মাহবুব করিম, ড. সাদেভ, ড. আব্দুল আল নোমান, অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর ডা. জাহিদুল ইসলাম, প্রভাষক হুমায়ূন কবিরসহ অনেকে।
বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ কমিউনিটির মোহাম্মদ জামিল হোসেন নাসির, রাশেদ বাদল, মনিরুজ্জামান মনির, ইসমাইল হোসেন, মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর হাওলাদার, আল আমিন, রাসেল ভুঁইয়া, নাজমুল ইসলাম বাবুল, শহীদ উল্লাহ প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে বক্তারা বিদেশের মাটিতে এ ধরনের আয়োজন একে অন্যের সঙ্গে সোহার্দ, সম্প্রীতির বন্ধন বাড়াবে বলে মন্তব্য করেন। আয়োজকদের ধন্যবাদ জানানোর পাশাপাশি দেশীয় সংস্কৃতি ধরে রাখতে এ আয়োজন নিয়মিত করারও আহ্বান জানান তারা।

ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন বাংলাদেশ এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ ফোরাম মালয়েশিয়ার সাধারণ সম্পাদক জোসেফ লিটন, সহসভাপতি আনোন ঘোষ, অর্গানাইজিং সেক্রেটারি মোহাম্মদ রমজান, সহসাধারণ সম্পাদক কামরুন নাহার তমা ও বারফোর্ম-এর সদস্যরা।
এ ছাড়া অনুষ্ঠানে প্রবাসে সাংবাদিকতায় বিশেষ অবদান রাখায় সম্মাননা সনদ দেওয়া হয় মালয়েশিয়াপ্রবাসী সাংবাদিক মোস্তফা ইমরান রাজু (আরটিভি), মোহাম্মদ আবদুল কাদের (সময় টিভি), জহিরুল ইসলাম হিরন (বাংলাদেশ প্রতিদিন), আশরাফুল মামুন (বিজয় টিভি) মনিরুজ্জামান মনির (ডিবিসি), বাপ্পী কুমার দাস (এস এ টিভি), মোহাম্মদ সালাউদ্দিন (দর্পণ টিভি) ও চিত্রসাংবাদিক মেহেদী হাসান।
সবশেষে ইউনিক ব্যান্ড, জেস্ট বাঙ্গল ব্যান্ড এবং মালয়েশিয়ায় বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত বাংলাদেশি শিক্ষার্থী শিল্পীদের একের পর এক পরিবেশনায় সবাইকে মুগ্ধ করে এবং প্রবাসী বাংলাদেশি শিল্পীদের অংশগ্রহণে নাচ-গান, কবিতা আবৃত্তির মাধমে অনুষ্ঠানের পরিসমাপ্তি ঘটে।

সব খবর