ঢাকা, বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ই জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ৩:৫৯
বাংলা বাংলা English English

বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কুমিল্লায় বোরোর বাম্পার ফলন


কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলায় চলতি বছর বোরোর বাম্পার ফলন হয়েছে। এর পাশাপাশি বাজারে ধানের ভাল দাম থাকায় কৃষকরা বেজায় খুশি।

উপজেলার দিশাবন্দ গ্রামের প্রবীণ কৃষক মো. আব্দুল কাইয়ুম বলেন, ‘আমি গত কয়েক বছরের চেয়ে এ বছর বেশি জমিতে বোরো ধান রোপণ করেছি। তিন একর জমিতে প্রায় ৩০০ মণ ধান হবে আশা করি। ঝড়-বৃষ্টি না হওয়ায় এখন পর্যন্ত কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। বর্তমান সরকার কৃষকবান্ধব হওয়ায় কৃষকরা অতীতের তুলনায় ধান চাষের প্রতি আগ্রহী হচ্ছে।’

একই এলাকার ধানচাষি শফিকুল ইসলাম জানান, ‘এবার ৬ বিঘা জমিতে বোরো ধানের চাষ করেছি। গত মৌসুমে ৫ বিঘা জমিতে ধান চাষ করে ছিলাম। এবার আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ফলনও খুব ভাল হয়েছে। প্রতিটি শীষ ক্ষেতে সোনার মত জ্বলছে। বাজারে ভাল দাম পেলে লাভবান হতে পারব।’

উপজেলার সরশপুর এলাকার বর্গাচাষি আবিদ মিয়া জানান, ‘প্রতিবেশীর কাছ থেকে দেড় বিঘা জমি বর্গা নিয়ে হাইব্রিড ধানের চাষ করছি। এই দোলায় (মাঠে) আমার মতো ধান কারো ফলেনি। বিঘায় ২৫ মণ ধানের আশা করছি। প্রতিদিন আসি আর ধান কাটার স্বপ্ন দেখি। ধানের বাজার ভাল পেলে বাকি দিনগুলি মোটামুটি ভালই চলে যাবে।’

এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সুজন কুমার ভৌমিক জানান, ২০২১-২০২২ অর্থবছরে উপজেলার কৃষি প্রণোদনা ও পুনর্বাসন কর্মসূচির আওতায় সাড়ে ৩ হাজার কৃষকের প্রত্যেককে ২ কেজি করে হাইব্রিড বোরো ধানের বীজ দেয়া হয়। ১ হাজার ১৯৫ চাষির মধ্যে বীজ ও সার বিতরণ করেছি। উপজেলায় চলতি বছর বোরো ধানের উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা করেন তিনি।

 

সব খবর