ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১০ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি, সন্ধ্যা ৭:৩২
বাংলা বাংলা English English

বৃহস্পতিবার, ৬ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

স্বামী শরিফুল খন্দকার এর মিথ্যা মামলা থেকে স্থায়ী জামিন পেলেন চিত্রনায়িকা জয়া চৌধুরী


সকল বাধা-বিপত্তি পেরিয়ে অভিনেত্রী জয়া চৌধুরী স্থায়ী জাবিন পেলেন কথায় আছে সত্যের খুঁটি নড়লো ও ,পড়ে যায় না । সাধারণ মানুষের মুখে একটি কথাই শোনা যায় স্থায়ী জামিন পেলেন চিত্রনায়িকা জয়া চৌধুরী, অভিজ্ঞতা হলেও তার স্বামীর শরিফুল খন্দকারের বিষয়টা এমন যে শরিফুল খন্দকার এখন থেকে ভাবতে পারবেন যে মিথ্যা মামলা দিয়ে কখনো কাউকে হয়রানি করা সম্ভব নয়।একাধিক মিথ্যা মামলার শিকার হয়ে উৎকন্ঠায় মানবেতর দিন পার করছেন বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সদস্য চিত্র নায়িকা জয়া চৌধুরী । বিষয়টি নাড়া দিয়েছে চলচ্চিত্র শিল্পীদের মধ্যে। জয়া চৌধুরী অতি দ্রুত তার বিরুদ্ধে করা সকল মামলা থেকে অব্যাহতির দাবি জানান। চার অক্ষরের ভালবাসা,আই এম রাজ,অনন্তকালের ফর এভার, ফুলবানু, অন্তরে প্রেমের জালা সহ বিভিন্ন ছবিতে তিনি অভিনয় করেছেন।
জানা যায়,২০২১ সালের ৪ অক্টোবর চট্রগ্রাম শুলকবহর গ্রামের খন্দকার ইয়াকুব আলীর ছেলে খন্দকার শরীফুল ইসলামের সাথে পারিবারিকভাবে ২০ লক্ষ টাকা দেন মোহরে ইসলামী শরিয়াহ ও কাবিনে বিয়ে সম্পন্ন হয় চিত্র নায়িকা জয়ার । বিবাহের পর থেকেই জয়ার ফ্ল্যাট ও ব্যবহৃত গাড়ী বিক্রি করার করার জন্য চাপ প্রয়োগ করলে জয়া রাজী না থাকায় তাকে শারীরিক ও মানষিক নির্যাতন করে আসছেন স্বামী শরীফুল ইসলাম। হত্যা সহ বিভিন্ন হুমকির কারনে স্বামীর বিরুদ্ধে একাধিক সাধারণ ডায়েরী করেন জয়া চৌধুরী ।পাষণ্ড স্বামীর নির্যাতনের শিকার হয়ে ২০২২ সালের এপ্রিল মাস থেকেই আলাদা থাকছেন এই অভিনেত্রী। এ সুযোগে জয়ার স্বাক্ষর জাল করে তার ব্যবহৃত গাড়ীটিও বিক্রি করা হয় । শুধু তাই নয় চিত্র নায়িকা জয়া চৌধুরী @জেনা চৌধুরীর বিরুদ্ধে মাহবুব হাসানকে দিয়ে ঢাকা চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের সিআর মামলা নং – ৫৯১ / ২০২২,২৯ মে লিয়াকত হোসাইনকে দিয়ে ঢাকা অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের সিআর মামলা নং – ১৫৪/২২(দোহার), ২৫ মে মোঃ রাহাতকে দিয়ে মাননীয় মুখ্য হাকিম আদালতের সিআর মামলা নং- ২৬৯/২২ (যাত্রাবাড়ী) মিথ্যা মামলা দায়ের করান। ৩১ মে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সভাপতি ইলিয়াস কাঞ্চন এর স্বাক্ষরিত একটি প্রত্যয়ন নিয়ে তিনি জজ কোর্ট থেকে ১ আগষ্ট জামিনে আসেন। এদিকে জয়া চৌধুরীকে গত ১ আগস্ট তার স্বামী শরীফুল হক জয়াকে কোর্টের বারান্দায় বিভিন্ন হুমকি দিয়েছে বলে রাজধানীর কোতোয়ালী থানায় সাধারণ ডায়েরী( জিডি নং-৩২) দায়ের করেন।

প্রত্যয়ন দেওয়ার কারনে জামিন মঞ্জুর হওয়ায় শিল্পী সমিতির সভাপতি ইলিয়াস কাঞ্চন এর নিকট কৃতজ্ঞতা জানিয়ে জয়া চৌধুরী এ প্রতিবেদক সৈয়দ ফারুক রহমানকে বলেন, সকল মিথ্যা মামলা থেকে জামিনে আছি । আমার স্বামী শরিফুল ইসলাম সবসময় আড়ালে থেকে বিভিন্ন জনকে বাদী বানিয়ে মিথ্যা মামলা হয়রানি করতেছে আমাকে আমার কেরিয়ার নষ্ট করার জন্য এ ধরনের মিথ্যে মামলা গুলো এবং আমার স্বাক্ষর জালিয়াতি করে একাধিক মিথ্যা মামলা করেন।মিথ্যা মামলার বাদীকে চিনি না। কোন দিনও দেখি নাই। আমার স্বামী ইন্ধন দিয়ে সব করাচ্ছেন। আইনের প্রতি আমি শ্রদ্ধাশীল। আমি সকল মিথ্যা মামলা থেকে অব্যাহতি ও আমার ওপর করা শারীরিক ও মানষিক নির্যাতনের বিচার চাই।
এ বিষয়ে চিত্র নায়িকা জয়ার স্বামী শরিফুলের সাথে বক্তব্য নেওয়ার জন্য মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করিলে নাম্বারটি বন্ধ থাকায় বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।
এ বিষয়ে দুঃখ প্রকাশ করে বাংলাদেশ শিল্প সমিতির সভাপতি ইলিয়াস কাঞ্চন ও ইলিয়াস কাঞ্চন প্যানেলের সাধারণ সম্পাদক নিপুন আক্তার তারা চিত্র নায়িকা জয়া চৌধুরীকে আশ্বাস প্রদান করে বলেন যে,বাংলাদেশ শিল্প সমিতির সবাই তোমার সাথে আছেন এবং তুমি মিথ্যা মামলা থেকে নিষ্পত্তি পাবে এছাড়াও ইলিয়াস কাঞ্চন ও তার প্যানেলের সাধারণ সম্পাদক নিপুন আক্তার উভয়ের আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে বলছেন যে মিথ্যা মামলা থেকে দ্রুত এই অভিনেত্রী জয় চৌধুরী নিঃস্বার্থ মুক্তি পায়। এই দাবি জানিয়েছেন শিল্প সমিতি। এছাড়াও
চিত্র নায়িকা শাহ হুমাইরা সুবাহ সহ অসংখ্য অভিনেতা/অভিনেত্রীরা জয়ার পাশে থাকার আশ্বাস প্রদান করে বলেন, যে কোন মেয়েই অনেক স্বপ্ন নিয়ে ঘর বাধে সেখানে স্বামীর দ্ধারা ক্ষতি হওয়া সেটা খুবই দুঃখ জনক।

সব খবর