ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১০ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি, সন্ধ্যা ৬:৪৩
বাংলা বাংলা English English

দুর্গম পাহাড়ের কেউ শিক্ষা থেকে আর হবে না বঞ্চিত


খাগড়াছড়ির পানছড়ি উপজেলার ভাগ্যপাড়া, তক্ষীরায়পাড়া, দুর্গামনি পাড়া, ঘিলাতলী, পুরাতন শনখোলা, শ্রী কুন্তিমাছড়া, করণচন্দ্র পাড়া, লালমোহনপাড়া, শাম্ভুকরায়পাড়া, খরানশিংপাড়া, হারুবিল, কিষ্টমনি ও বৌদ্ধমনিপাড়াসহ বিভিন্ন পাড়ায় বিশাল এলাকাজুড়ে ছিলনা কোন উচ্চ বা নিম্নমাধ্যমিক বিদ্যালয়। তাই বেশিরভাগ শিক্ষার্থী প্রাথমিকের গণ্ডি পার হয়েই শিক্ষা জীবনের ইতি ঘটাত। এই দুর্গম এলাকাগুলোর করুণ কাহিনী শুনে সরেজমিনে ছুটে আসে খাগড়াছড়ির জেলা প্রশাসক প্রতাপ চন্দ্র বিশ্বাস।

গত ২৮ এপ্রিল তিনি অভিভাবকদের সাথে এক মত বিনিময় করে বিদ্যালয় নির্মাণের ঘোষণা দেন। যার নামকরণ করা হয় শাম্ভুকরায় পাড়া নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়। অবশেষে বিদ্যালয়ের জায়গা নির্ধারণ শেষে ৫ লাখ টাকা ব্যায়ে নির্মাণ করা হয় দৃষ্টিনন্দন বিদ্যালয় ভবন। আজ ২২ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার সকাল এগারটায় বিদ্যালয়ের শুভ্র উদ্বোধন করেন। এ সময় বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটি ও স্থানীয়রা প্রধান অতিথি প্রতাপ চন্দ্র বিশ্বাসকে ফুলেল শুভেচ্ছা দিয়ে বরণ করেন।

অনুষ্ঠানে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় সভাপতিত্ব করেন নব নির্মিত বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি খগেন্দ্র ত্রিপুরা। ইউপি সদস্য নিরঞ্জন ত্রিপুরার সঞ্চালনায় এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন অমর সিংহ ত্রিপুরা। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবাইয়া আফরোজ, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মনিতা ত্রিপুরা, পানছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আনচারুল করিম। জেলা প্রশাসকের পৃষ্ঠপোষকতায় বিদ্যালয়টি স্থাপন হওয়ায় এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে সকলে শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করেন। এছাড়াও এলাকার বেহাল দশার রাস্তাটি নির্মাণের জন্য জেলা প্রশাসকের সুদৃষ্টি কামনা করা হয়।

সব খবর