ঢাকা, বুধবার, ১৯শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৫ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৩ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি, সকাল ১০:০৫
বাংলা বাংলা English English

এশিয়ার লৌহমানবী শেখ হাসিনা: দ্য ইকোনমিস্ট


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ছবি: পিএমও

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে এশিয়ার লৌহমানবী হিসেবে উল্লেখ করেছে প্রখ্যাত ব্রিটিশ সাপ্তাহিক দ্য ইকোনমিস্ট। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১৭ কোটি মানুষের দেশে দারিদ্র্য বিমোচন নেতৃত্ব দিয়ে যাচ্ছেন তিনি।

বুধবার (২৪ মে) ‘শেখ হাসিনা ইজ এশিয়াস আয়রন লেডি’ শিরোনামে একটি সাক্ষাৎকার ভিত্তিক প্রতিবেদন প্রকাশ করে দ্য ইকোনমিস্ট। প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক যুক্তরাষ্ট্র সফরের সময় ভার্জিনিয়ার এক হোটেলে এই সাক্ষাৎকার নেয়া হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘমেয়াদি নারী সরকার প্রধান এবং উভয় লিঙ্গের রাষ্ট্র প্রধানদের মধ্যে অন্যতম উল্লেখযোগ্য একজন ব্যক্তিত্ব। ক্ষমতায় থাকার দুই দশকের মধ্যে ১৭ কোটি মানুষের দেশে দারিদ্র্য বিমোচনের মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে তিনি সামনের সারিতে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছেন। তার নেতৃত্বের বেশিরভাগ সময়ই দেশের বার্ষিক গড় জিডিপি প্রবৃদ্ধির হার ছিল ৭ শতাংশের ঘরে।

ইকোনমিস্টের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনের স্ক্রিনশট

ইকোনমিস্টের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনের স্ক্রিনশট

তার যোগ্য নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ পর পর তিনটিসহ মোট চারটি নির্বাচনে জয়লাভ করেছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৭৫ বছর বয়সী এই নেতার নেতৃত্বে তার দল আওয়ামী লীগ পরপর তিনটি নির্বাচনে জয়লাভ করেছে এবং সবমিলিয়ে চারবার। ইন্দিরা গান্ধী বা মার্গারেট থ্যাচারের চেয়ে বেশিদিন সরকার প্রধানের দায়িত্ব পালন করেছেন শেখ হাসিনা।

আগামী বছরের শুরুর দিকে বাংলাদেশে যে জাতীয় নির্বাচন হতে যাচ্ছে সেই নির্বাচনেও জয়ী হবেন বলে শেখ হাসিনা আশা করছেন।

সাক্ষাৎকারে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমি এ দেশকে একটি ক্ষুধামুক্ত, দারিদ্র্যমুক্ত দেশে পরিণত করতে চাই।’

ইকোনমিস্ট জানিয়েছে, শক্তহাতে শেখ হাসিনা নেতৃত্ব দেয়ায় লাভবান হয়েছে বাংলাদেশ। অবকাঠামোগত বিনিয়োগসহ এমন কিছু নীতি তিনি প্রণয়ন করেছেন, যার মাধ্যমে অস্থিতিশীল বৈশ্বিক অর্থনীতির মধ্যেও প্রবৃদ্ধির ধারা অব্যাহত ছিল। কঠিন সময়ে দুর্বল কোনো সরকারের পক্ষে এটা করা সম্ভব হতো না বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

সব খবর